Home বাংলাদেশ গানবাজনা করায় জানাজা না পড়ানোর ঘোষণা!

গানবাজনা করায় জানাজা না পড়ানোর ঘোষণা!

0 second read
0
0
233

ইসলাম ধর্মাবলম্বী কোনো পরিবার এ নির্দেশনা অমান্য করলে তাদের বিয়ে পড়াতে বা দোয়ায় কোনো আলেম অংশগ্রহণ করবে না। এমনকি ওই পরিবারের কোনো ব্যক্তি মারা গেলে তার জানাজাও পড়াতে মসজিদের ইমাম বা অন্য কেউ অংশগ্রহণ করবে না বলে ঘোষণা দেয়া হয়। এ নির্দেশনা মসজিদের মাইকেও এলাকাবাসীকে জানানো হয়। গানবাজনা করলে বিয়েতে এবং জানাজায় মসজিদের ইমামের অংশগ্রহণ না করার বিষয়টি সামাজিক যোগাযোগমাধ্যম ফেসবুকে ভাইরাল হলে তা নিয়ে বিরূপ প্রতিক্রিয়া দেখা দেয়।

স্থানীয় পঞ্চায়েত ও মসজিদ কমিটির লোকজন এ সিদ্ধান্ত নিয়েছে বল জানান বন্দর ইউনিয়ন পরিষদের ১নং ওয়ার্ডের সদস্য সাব্বির আহম্মেদ ইমন। তিনি বলেন, বন্দর ইউনিয়ন পরিষদের ১নং ওয়ার্ডের বাগে জান্নাত জামে মসজিদ কমিটির সভাপতি মিজানুর রহমান জুমার নামাজের খুতবার আগে বিয়ে ও অন্যান্য অনুষ্ঠানে গানবাজনার প্রসঙ্গটি তোলেন। পরে এ সিদ্ধান্ত নেয়া হয়।

তিনি বলেন, এ নিয়ে মাইকিংও করা হয় এলাকায়। এ নির্দেশ কেউ অমান্য করলে তার জানাজা ও বিয়েতে কোনো ইমাম বা আলেম যাবেন না। এ সিদ্ধান্তের বিষয়টিও ঠিক।
নারায়ণগঞ্জ বন্দরের একটি এলাকায় সামাজিক অনুষ্ঠানে গানবাজনা করায় পরিবারের সদস্যদের জানাজা ও বিয়ে না পড়ানোর ঘোষণা দেয়া হয় মসজিদ থেকে। এ ঘটনায় তদন্ত কমিটি গঠন করেছে উপজেলা প্রশাসন। রোববার উপজেলা নির্বাচন কর্মকর্তাকে প্রধান করে তিন সদস্যের এ কমিটিকে আগামী দুই কার্যদিবসের মধ্যে প্রতিবেদন জমা দেয়ার নির্দেশ দেয়া হয়েছে।

বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন বন্দর উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা (ইউএনও) শুক্লা সরকার। তিনি বলেন, উপজেলা নির্বাচন কর্মকর্তাকে প্রধান এবং উপজেলা শিক্ষা অফিসার ও পল্লী উন্নয়ন অফিসারকে সদস্য করে একটি তদন্ত কমিটি গঠন করা হয়েছে। আগামী দুই কার্যদিবস পরে তারা প্রতিবেদন জমা দেবেন। তদন্তের পর প্রশাসনিক ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে।

এলাকাবাসী জানান, মসজিদ সংলগ্ন একটি বাড়িতে দুই দিন ধরে উচ্চশব্দে গান বাজানো হয়। এতে মুসল্লিদের নামাজ আদায়ে সমস্যা হয়। নিষেধ করা সত্ত্বেও গান বাজানো হয়। গত ১ জানুয়ারি জুমার নামাজের সময় বন্দর ইউনিয়নের ১নং ওয়ার্ডের কলাবাগ এলাকায় বিয়ে, সুন্নতে খৎনা, গায়েহলুদের মতো অনুষ্ঠানগুলোতে গানবাজনার আয়োজন করা যাবে না বলে নির্দেশনা দেয়া হয়।

ইসলাম ধর্মাবলম্বী কোনো পরিবার এ নির্দেশনা অমান্য করলে তাদের বিয়ে পড়াতে বা দোয়ায় কোনো আলেম অংশগ্রহণ করবে না। এমনকি ওই পরিবারের কোনো ব্যক্তি মারা গেলে তার জানাজাও পড়াতে মসজিদের ইমাম বা অন্য কেউ অংশগ্রহণ করবে না বলে ঘোষণা দেয়া হয়। এ নির্দেশনা মসজিদের মাইকেও এলাকাবাসীকে জানানো হয়। গানবাজনা করলে বিয়েতে এবং জানাজায় মসজিদের ইমামের অংশগ্রহণ না করার বিষয়টি সামাজিক যোগাযোগমাধ্যম ফেসবুকে ভাইরাল হলে তা নিয়ে বিরূপ প্রতিক্রিয়া দেখা দেয়।

Load More Related Articles
Load More By admin
Load More In বাংলাদেশ

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Check Also

টি স্পোর্টস লাইভ .! বাংলাদেশ বনাম ওয়েস্ট ইন্ডিজ ! লাইভ খেলা দেখুন

আসসালামু আলাইকুম সবাই কেমন আছেন আশা করি সবাই ভালো আছেন। আমরা অনেকেই আছি যারা মোবাইলে সরাসর…